নিজস্ব প্রতিনিধি:
রাজশাহী-৫ (দুর্গাপুর- পুঠিয়া) আসনে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী আব্দুল ওয়াদুদ দারার নির্বাচনী মাঠে সুনাম ক্ষুন্ন করতে স্বতন্ত্র প্রার্থী ওবাইদুর রহমানের সমর্থকরা নিজ নির্বাচনী ভোট ক্যাম্পে ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটিয়েছে বলে লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে। গত ২৮ ডিসেম্বর আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী আব্দুল ওয়াদুদ দারা নির্বাচনী এজেন্ট আব্দুস সামাদ বাদী হয়ে ১১জনের নাম উল্লেখ করে দুর্গাপুর থানা ও নির্বাচন অনুসন্ধানী টিমের চেয়ারম্যান এ লিখিত অভিযোগ করেন।
অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে স্বতন্ত্র প্রার্থী ওবাইদুর রহমানসহ তার সমর্থকরা পূর্বপরিকল্পিতভাবে নৌকার প্রার্থী আব্দুল ওয়াদুদ দারার বিরুদ্ধে স্লোগান দিতে থাকে। এ সময় স্বতন্ত্র প্রার্থী ওবাইদুর রহমানের বিক্ষুব্ধ সমর্থকরা নিজেদের নির্বাচনী ক্যাম্পে ককটেল বিস্ফোরণ করে। এ ঘটনায় স্থানীয় সাধারণ জনগণের মধ্যে ভীতুতা ও আতঙ্ক সৃষ্টি হয়। এতে এলাকার আইনশৃঙ্খলার চরম অবনতি ঘটেছে বলেও দাবি করেন নৌকার নির্বাচনী এজেন্ট আব্দুস সামাদ।

ভুক্তভোগী আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল ওয়াদুদ দারা বলেন,রাজশাহী-৫ আসনের স্বতন্ত্র এমপি প্রার্থী ঈগল প্রতীকের নামে মিছিল বের করে।কিন্তু এ সময় স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকরা মিছিলে আমার বিরুদ্ধে স্লোগান দিয়ে নির্বাচনী মাঠে সুনাম ক্ষুন্ন করার চেষ্টা চালাচ্ছে। এমনকি তারা নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ করতে নিজের নির্বাচনী ক্যাম্পে ককটেল হামলা চালায়। এ সময় তিনি আরো বলেন, দুর্গাপুরে নৌকার গণজোয়ার দেখে স্বতন্ত্র প্রার্থী ও তার সমর্থকরা ঈর্ষান্বিত হয়েই এমন ঘটনা ঘটাচ্ছে। গত বুধবারে তারা দুর্গাপুর উপজেলার কিশোরপুর গ্রামে নৌকার নির্বাচনী ক্যাম্পে আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দেয়। আমি আমার নেতাকর্মীদের দেশের শান্তিপূর্ণ নির্বাচনকে সফল করতে সহনশীল ও ধৈর্যের সহিত সাধারণ ভোটারদের পাশে থেকে উৎসাহ জোগাতে বলেছি।

উপজেলা আওয়ামী লীগের সাভাপতি ফিরোজ মান্নান বলেন, স্বতন্ত্র প্রার্থীর মিছিল বের করে নৌকার প্রার্থী আব্দুল ওয়াদুদ দারার বিরুদ্ধে স্লোগান দিয়ে তাদের নির্বাচনী ক্যাম্পের সামনে গিয়ে ককটেল বিস্ফোরণ করেন। এঘটনায় লিখিত অভিযোগ করা হয়েছে।

দুর্গাপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) খায়রুল ইসলাম জানান, থানায় ১১ জনের নাম উল্লেখ করে লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে আমরা আইনগত ব্যবস্থা নেব। ইতিমধ্যে আমরা নির্বাচন অনুসন্ধানী টিম তদন্তের কাজ শুরু করেছে।